মিজোরাম থেকে আসার পথে ৪০ টি কাঁচা সুপারি ভর্তি ট্রাক আটক করল রামনাথপুর পুলিশ।

মিজোরাম থেকে আসার পথে ৪০ টি কাঁচা সুপারি ভর্তি ট্রাক আটক করল রামনাথপুর পুলিশ।

মিজোরাম থেকে আসার পথে ৪০ টি কাঁচা সুপারি ভর্তি ট্রাক আটক করল রামনাথপুর পুলিশ।


মিজোরাম থেকে আসার পথে ৪০টি কাঁচা সুপারি ভর্তি ট্রাক আটক করল রামনাথপুর পুলিশ। মূখ্যমন্ত্রীর নির্দেশের দোহাই দিয়ে বুধবার রাত ১০টা নাগাদ আটক করা ট্রাকগুলো প্রায় ২৪ ঘণ্টা থেকে আটক করে রাখলেও এখনো সিজ করা হয়নি। এনিয়ে তীব্র প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হয়েছে। জানা গেছে, কাঁচা সুপারি ব্যবসায় কোনো ধরনের সরকারি নিষেধাজ্ঞা নেই। এরপরও ট্রাক গুলোকে আটক করায় এহেন পুলিশের ভূমিকায় চটে লাল রাইজর দল। নিষেধাজ্ঞা না থাকা সত্ত্বেও ২৪ ঘণ্টা থেকে ট্রাকগুলো আটক করে রাখায় হাইলাকান্দির ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীদের পেটে লাথি মারার চক্রান্ত শুরু হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন রাইজর দলের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক জহির উদ্দিন লস্কর। আজ তিনি রামনাথপুর থানায় উপস্থিত হয়ে ওসি লিটন নাথের সঙ্গে আলোচনায় বসেন। যদিও ওসি লিটন নাথ এনিয়ে মূখ্যমন্ত্রীর নিষেধাজ্ঞা রয়েছে বলে দায় সারেন। পরে ক্ষুদ্ধ রাইজর দলের নেতা জহির উদ্দিন লস্কর বলেন, সরকারী নিষেধাজ্ঞা সত্ত্বেও কোটি কোটি টাকার বার্মিজ সুপারি পাচার করা চলছে, যদিও মোটা অঙ্কের কমিশন নিয়ে হাইলাকান্দি পুলিশ সেগুলো পাচারে সাহায্য করার বিস্তর অভিযোগ রয়েছে। অথচ স্থানীয় ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীদের গাড়ী আটক করে রেখে বাহাদুরি দেখানো বরদাস্ত করা হবে না। জহিরবাবু বলেন, কাঁচা সুপারি ব্যবসায় মূখ্যমন্ত্রীর নিষেধাজ্ঞা থাকলে এনিয়ে কোনো সরকারি নির্দেশনা জারি করা হল না কেন সেটা জানতে চায় রাইজর দল। আজ অন্য কর্মসূচীতে অংশগ্রহণের পথে রামনাথপুরে উপস্থিত হলে বিধায়ক সুজাম উদ্দিন লস্কর এবং আজমল ভাতৃ সিরাজ উদ্দিন আজমলও কাঁচা সুপারির ট্রাক আটক করার খবর নেন। সবসময় মূখ্যমন্ত্রীর প্রশংসায় পঞ্চমুখ থাকা বিধায়ক সিরাজ উদ্দিন আজমল সুপারির ট্রাকগুলো ছাড়াতে তদ্বির করলেও ব্যর্থ হন। ফলে এনিয়ে জেলাজুড়ে কৌতুহলের সৃষ্টি হয়েছে। এনিয়ে রাইজর দলের নেতা জহির উদ্দিন লস্কর প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে বলেন, সিরাজ উদ্দিন আজমলের মতে হিমন্ত বিশ্বশর্মা ভারতের শ্রেষ্ট মূখ্যমন্ত্রী। অথচ মূখ্যমন্ত্রীর নির্দেশে আটক করা সুপারি ট্রাক ছাড়াতে ব্যর্থ হওয়া দুর্ভাগ্যজনক। জহির বলেন, হাইলাকান্দির তিন বিধায়ক সবসময় বলে থাকেন হাইলাকান্দি ইউডিএফের সরকার চলছে। কিন্তু ইউডিএফের সরকারের রাজত্বে ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীদের চূড়ান্ত হেনস্থা করা হচ্ছে। প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত আটক করা ৪০টি কাঁচা সুপারির ট্রাক রামনাথপুরে রয়েছে।
( হাইলাকান্দি থেকে সিপ্রীয়ান ডায়াসের প্রতিবেদন )

LEAVE A COMMENT

Comment